আজ || বুধবার, ১৭ এপ্রিল ২০২৪
শিরোনাম :
  ফেনীর দাগনভূঞায় অ্যাডভোকেট জয়নাল আবেদীন স্মরণে স্মরণ সভা অনুষ্ঠিত       ফেনীর দাগনভূঞায় কালান্তর গোষ্ঠীর আয়োজনে প্রীতি ফুটবল ম্যাচ অনুষ্ঠিত       ফেনীর দাগনভূঞায় নানা আয়োজনে বাংলা নববর্ষ উদযাপন       দাগনভূঞা রিপোর্টার্স ইউনিটির ইফতার ও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত       ফেনীর দাগনভূঞা অফিসার্স ক্লাব’র আয়োজনে দুই অফিসারের বিদায় সংবর্ধনা       ফেনীর দাগনভূঞায় এসিল্যান্ড মেহরাজ শারবীনের বিদায় সংবর্ধনা       বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী যুবদল বাহরাইন শাখার উদ্যোগে ইফতার ও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত       বাহরাইনের স্পীকারের সাথে বাংলাদেশ দূতাবাসের চার্জ দ্য অ্যাফেয়ার্সের সাক্ষাৎ       ফেনীর দাগনভূঞায় রেন্ট-এ কার শ্রমিক কল্যাণ সমবায় সমিতির ইফতার ও আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত       পবিএ মাহে রমজান উপলক্ষে ফেনী ইউনিভার্সিটির আইন বিভাগের উদ্যোগে ইফতার ও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত    
 


বাংলাদেশের কোনো দলের পক্ষে যুক্তরাষ্ট্র অবস্থান নেয়নি: মার্কিন দূতাবাস

বাংলাদেশের কোনো নির্দিষ্ট দলের পক্ষে যুক্তরাষ্ট্র অবস্থান নেয়নি কিংবা এখানে বিশেষ পছন্দের কোনো দল নেই। আমেরিকা চায়, বাংলাদেশের জনগণ তাদের পছন্দের নেতা নির্বাচিত করতে পারুক, এ কথা জানালেন ঢাকার মার্কিন দূতাবাসের মুখপাত্র ব্রায়ান শিলার।

কূটনৈতিক প্রতিবেদকদের এক প্রশ্নের জবাবে বুধবার (১৮ অক্টোবর) হোয়াটস্যআপ বার্তায় এ কথা বলেন তিনি।

বাংলাদেশে রাজনৈতিক ক্ষমতার পরিবর্তনের জন্য আমেরিকার তৎপরতার বিষয়ে সম্প্রতি ভারতীয় একটি গণমাধ্যমে প্রতিবেদন প্রকাশিত হয়। প্রতিবেদনটির বিষয়ে মার্কিন দূতাবাসের কাছে প্রশ্ন করা হয়েছিল, আন্তর্জাতিক শৃঙ্খলায় বিশ্বাসী আমেরিকা কি অন্য একটি স্বাধীন ও সার্বভৌম দেশের ক্ষেত্রে এ ধরনের তৎপরতা চালাতে পারে? একইসঙ্গে জানতে চাওয়া হয়, ভারতীয় গণমাধ্যমের ওই প্রতিবেদনের বিষয়ে দূতাবাস মন্তব্য করবে কি না?

জবাবে ব্রায়ান শিলার বললেন, বাংলাদেশে ব্লকড ওই অনলাইন আউটলেটের প্রতিবেদনের বিষয়ে যুক্তরাষ্ট্র অবগত। ঢাকা সফররত মার্কিন উপ-সহকারী মন্ত্রী আফরিন আক্তার গত সোমবার বলেছেন, আমেরিকা বাংলাদেশে অবাধ, সুষ্ঠু ও শান্তিপূর্ণ নির্বাচনকে সমর্থন করে। নির্বাচন শুধু ভোটের দিনে কীভাবে পরিচালিত হয় তা নয়, বরং নাগরিক সমাজ, গণমাধ্যম এবং অন্যান্য অংশীদারদের গণতান্ত্রিক প্রক্রিয়ায় অবাধে অংশগ্রহণ করার সুযোগ দেয়।

তিনি আরও বলেন, মার্কিন পররাষ্ট্র দফতরের মুখপাত্র, রাষ্ট্রদূত পিটার হাস এবং অন্য কর্মকর্তারা একাধিকবার বলেছেন, আমরা বাংলাদেশে কোনো একটি দলের পক্ষ নেয়নি বা এখানে বিশেষ পছন্দও নেই। আমরা চাই, বাংলাদেশের জনগণ তাদের নিজেদের নেতা নির্বাচন করতে পারুক।


Top